হিলি দিয়ে ফের বন্ধ পাথর আমদানি

ভারতের অভ্যন্তরে সমস্যার কারণে দিনাজপুরের হিলি স্থলবন্দর দিয়ে গত চারদিন ধরে ভারত থেকে চিপস পাথর আমদানি বন্ধ রয়েছে। এর আগে চলতি বছরের ১৩ ফেব্রুয়ারি থেকে পাথর রফতানি বন্ধ করে দেয় ভারতীয় ব্যবসায়ীরা। সেসময় ১৪ দিন পাথর আমদানি বন্ধ ছিল।

দেশের বাজারে পাথরের সরবরাহ কমায় দাম বেড়ে যায়। পরে আন্ডার লোডিং পদ্ধতিতে ট্রাকে নির্দিষ্ট পরিমাণ চিপস পাথর রফতানি শুরু হলে ২৭ ফেব্রুয়ারি থেকে হিলি বন্দর দিয়ে পুনরায় পাথর আমদানি শুরু হয়। এতে করে দেশের বাজারে পাথরের সররবাহ বাড়ায় দাম কমতে থাকে।  তবে ভারতে ওভারলোডিং নিয়ে স্থানীয় রফতানিকারক ও ট্রাক সিন্ডিকেটের সঙ্গে বালুরঘাটের রফতানিকারক ও ট্রাক সিন্ডিকেটের জটিলতা তৈরি হওয়ায় গত ৬ মার্চ থেকে পুনরায় চিপস পাথর রফতানি বন্ধ রয়েছে।  আমদানি-রফতানিকারক গ্রুপের সভাপতি হারুন-উর রশিদ জানান, হিলি স্থলবন্দরসহ বিভিন্ন স্থান থেকে আসা পাথর আমদানিকারকরা দেশের বিভিন্ন স্থানে চলমান ফোরলেন সড়কে পাথর সরবরাহ করে থাকে। কিন্তু গতমাস থেকে হিলি স্থলবন্দরে পাথর নিয়ে জটিলতা তৈরি হওয়ায় খুব সমস্যার সৃষ্টি হয়েছে।  তবে বুধবার ভারত থেকে পাথর আমদানি হবার কথা ছিল।  কিন্তু পাথর আমদানি হচ্ছে না।  হিলি পানামা পোর্ট লিংক লিমিটেডের জনসংযোগ কর্মকর্তা সোহরাব হোসেন জানান, বন্দর দিয়ে বোল্ডার পাথরের আমদানি অব্যাহত থাকলেও ভারতের অভ্যন্তরে সমস্যার কারণে গত ৬ মার্চ থেকে চিপস পাথর আমদানি বন্ধ আছে। এতে ব্যবসায়ী ও সরকার সবাই ক্ষতিগ্রস্ত হচ্ছে। কারণ পূর্বের থেকে এখন হিলি স্থলবন্দর দিয়ে ট্রাকের সংখ্যা অনেক কমে গেছে। এখন পেঁয়াজের ট্রাক বেশি আসছে।

Related Posts