রাজশাহী মহানগরীতে ফিটিং পার্টির দুই নারীসহ ৪ সদস্য গ্রেফতার

রাজশাহী মহানগরীতে পরিকল্পিতভাবে নারীদের দিয়ে ফাঁদে ফেলে চাঁদা আদায়ের অপরাধে ফিটিং পার্টির দুই নারীসহ ৪ সদস্যকে গ্রেফতার করেছে বোয়ালিয়া মডেল থানা পুলিশ ।গ্রেফতারকৃতরা হলো নাটোর জেলার লালপুর থানার লালপুর অর্জুনপাড়া গ্রামের আকবর হোসেনের স্ত্রী মোসাঃ বেলী খাতুন (৩৩), নওগাঁ জেলার মান্দা থানার কালিকাপুর বাজারের তৌহিদুলের স্ত্রী রেহেনা পারভীন (৪০), রাজশাহী মহানগরীর বোয়ালিয়া থানার কয়েরদাড়া গ্রামের আয়েজ উদ্দিনের ছেলে মোঃ রবিউল ইসলাম (৪৬) এবং নজরুল ইসলামের ছেলে তরিকুল (২৫)।

ঘটনা সূত্রে জানা যায়, রাজশাহী জেলার বাগমারা থানার ঠাকুরপাড়া গ্রামের জামিন উদ্দিনের ছেলে মোঃ মুক্তার হোসেন (৩৩) মোটরাসইকেল নিয়ে গতকাল ১৪ জুলাই ২০২১ বেলা ১১.০০ টায় রাজশাহীর কাদিরগঞ্জে সেলিম এন্টারপ্রাইজে মাছের প্রোটিন কেনার জন্য রওনা হয়। পথিমধ্যে মুক্তারের পূর্বপরিচিত বেলী খাতুন তাকে মোবাইল করে কয়েরদাড়া খ্রীষ্টানপাড়া মোড়ে আসতে বলে।
মুক্তার তার বন্ধু মোঃ বাবু (৫০)কে সঙ্গে নিয়ে বেলা ১২.৩০ টায় বোয়ালিয়া থানার খ্রীষ্টানপাড়া মোড়ে পৌঁছিলে আসামী বেলী সহ তার অপর সহযোগী  রেহেনা পারভীন (৪০) এর সাথে দেখা করে। এদিকে আসামী বেলী তার বাড়ীতে যাওয়ার জন্য মুক্তারকে অনুরোধ করে। সে যেতে না চাইলে পূর্ব পরিকল্পনা অনুযায়ী অপর আসামী মোঃ রবিউল ইসলাম ও তরিকুল সহ আরো কয়েকজন মিলে মুক্তারকে জোরপূর্বক বেলীর বাড়ীর দিকে নিয়ে যাওয়ার চেষ্টা করে। সে যেতে না চাইলে আসামীরা তাকে মারপিট করে আটকে রাখে  এবং তার কাছে থাকা ৫,৫০০ টাকা কেড়ে নেয়। উক্ত ঘটনার প্রেক্ষিতে বোয়ালিয়া মডেল থানায় একটি নিয়মিত মামলা রুজু হয়।

মামলা পরবর্তীতে তদন্তকারী অফিসার এসআই মোঃ দুলাল হোসেন সঙ্গীয় ফোর্স সহ গোপন সংবাদের ভিত্তিতে গতকাল ১৪ জুন ২০২১ রাত ৯.৩০ টায় বোয়ালিয়া থানার কয়েরদাড়া খ্রীষ্টানপাড়া এলাকায় অভিযান পরিচালনা করে ফিটিং চক্রের দুই নারীসহ ৪ জনকে গ্রেফতার করেন। এর মধ্যে আসামী মোঃ রবিউল ইসলামের বিরুদ্ধে মহানগরীর বিভিন্ন থানা একাধিক মামলা আছে।  গ্রেফতারকৃত আসামীদের বিরুদ্ধে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হয়েছে।

সূত্র : আরএমপি নিউজ

Related Posts