রাজশাহীতে পুলিশ সদস্যকে মারধর, ছাত্রলীগ নেতা কারাগারে

রাজশাহীর পুঠিয়ায় দায়িত্বরত অবস্থায় পুলিশ সদস্যকে মারধরের অভিযোগ নাইম হাসান নামের এক ছাত্রলীগ নেতাকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সোমবার (৬ মে) সন্ধ্যায় আদালতের মাধ্যমে তাকে জেলা কারাগারে পাঠানো হয়েছে। নাইম হাসান বানেশ্বর ইউনিয়নের ২ নম্বর ওয়ার্ড ছাত্রলীগের সাধারণ সম্পাদক। এছাড়া তিনি বানেশ্বর কলেজ ছাত্রলীগের সহ-সভাপতির দায়িত্বে ছিলেন। বর্তমানে তিনি কলেজ কমিটির সভাপতি পদপ্রার্থী। এবারে বানেশ্বর সরকারি কলেজে ছাত্রলীগের সভাপতি পদপ্রার্থী হলেন ছাত্রলীগ নেতা নাইম। এদিকে হামলার শিকার পুলিশ সদস্য আতিকুর রহমান রাজশাহী জেলা পুলিশে কর্মরত।

পুঠিয়া থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) সোহরাওয়ার্দী হোসেন  বলেন, বানেশ্বর কলেজ মাঠে আম নিয়ে আসার সময় ছাত্রলীগ নেতা নাইমের বাবার ভটভটিতে একটি ইজিবাইক ধাক্কা দেয়। এতে তার বাবা আহত হয়। খবর পেয়ে ঘটনাস্থলে গিয়েই গণ্ডগোলের সৃষ্টি করেন নাইম। এ সময় জেলা পুলিশের একটি টিম ঘটনাস্থলের পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণের চেষ্টা করে। তবে নাইম পুলিশ সদস্য আতিকুরকে আকস্মিক কিলঘুষি ও লাথি মারতে থাকেন। গুরুতর আহত অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে রাজশাহী জেলা পুলিশ লাইন হাসপাতালে ভর্তি করা হয়। ওসি আরও বলেন, অন্য পুলিশ সদস্যরা এগিয়ে এসে নাইমকে বাধা দেয় এবং তাকে আটক করে। এ হামলার ঘটনায় একজন এসআই বাদী হয়ে নাইম ও তার বাবার বিরুদ্ধে মামলা করেছে। পরে নাইম গ্রেফতারের পর সোমবার সন্ধ্যায় আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠানো হয়েছে। উপজেলা ছাত্রলীগের বিলুপ্ত কমিটির সভাপতি সাকিবুর রহমান মিঠু বলেন, ‘ঘটনাটি আমরা জেনেছি। তার বিরুদ্ধে সাংগঠনিক ব্যবস্থা নেওয়া হবে।’

Related Posts