বিএনপি নেতাদের কারাগারে রাখতে সরকার উন্মাদ হয়ে গেছে: মির্জা ফখরুল

বিএনপি নেতাদের কারাগারে রাখতে সরকার উন্মাদ হয়ে গেছে: মির্জা ফখরুল

বিএনপি মহাসচিব মির্জা ফখরুল ইসলাম আলমগীর বলেছেন, সরকার দেশ শাসনে সর্বক্ষেত্রে নজীরবিহীন ব্যর্থতা ঢাকতেই বিএনপি নেতাকর্মীদের বানোয়াট মামলায় কারাগারে আটকে রাখতে উন্মাদ হয়ে গেছে। তবে যেকোনো মুহূর্তে ক্ষোভে ফেটে পড়া মানুষ বর্তমান সরকারের রাজসিংহাসন উল্টে দিতে রাজপথ কাঁপিয়ে ধেয়ে আসবে।

বৃহস্পতিবার এক বিবৃতিতে তিনি এ কথা বলেন। কিশোরগঞ্জ জেলা যুবদলের সহ-সভাপতি ফয়সাল হাসান, জেলা ছাত্রদলের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক ওয়ালী উল্লাহ রাব্বানী তৌকি এবং গুরুদয়াল কলেজ ছাত্রদলের যুগ্ম আহ্বায়ক শাহ আলম নিম্ন আদালতে হাজির হয়ে জামিন আবেদন করলে তা নামঞ্জুর করে তাদের কারাগারে পাঠানোর ঘটনায় নিন্দা ও প্রতিবাদ জানিয়ে তিনি এ বিবৃতি দেন। মির্জা ফখরুল বলেন, ৩০ ডিসেম্বরের নির্বাচনের আগের রাতে ভোট ডাকাতির মাধ্যমে নির্লজ্জভাবে রাষ্ট্রক্ষমতা দখলকারী কর্তৃত্ববাদী আওয়ামী সরকার এখন পুরোপুরি ফ্যাসিবাদী কায়দায় দেশ শাসন শুরু করেছে। বিএনপি এবং এর অঙ্গ ও সহযোগী সংগঠনসহ বিরোধী দলীয় নেতাকর্মীদের রাজনীতির অঙ্গন থেকে সরিয়ে দিতে রাজনৈতিক উদ্দেশ্যপ্রণোদিত ভুয়া ও গায়েবি মামলা দায়ের এবং আদালত কর্তৃক জামিন নামঞ্জুর যেন বর্তমান অবৈধ আওয়ামী সরকারের প্রধান লক্ষ্যে পরিণত হয়েছে। তিনি বলেন, এই লক্ষ্য বাস্তবায়নের জন্য মানুষের ভোটের অধিকার এবং গণতান্ত্রিক অধিকার জোর করে কেড়ে নেওয়া হয়েছে। দেশকে বিরোধী দলশূন্য করতে বিএনপি নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে কোনো কারণ ছাড়াই মিথ্যা মামলা দিয়ে কারান্তরীণ করা হচ্ছে। ভুয়া, বানোয়াট ও সাজানো মামলায় কিশোরগঞ্জ জেলার নেতাকর্মীদের জামিন বাতিল করে কারাগারে পাঠানো বর্তমান গণধিকৃত সরকারের ধারাবাহিক অপকর্মেরই অংশ। বিবৃতিতে বিএনপি মহাসচিব অবিলম্বে নেতাকর্মীদের বিরুদ্ধে দায়ের করা মামলা প্রত্যাহার এবং তাদের মুক্তির জোর দাবি জানিয়েছেন।

অনলাইন ডেস্ক