বন্ধ হলো সালমান খানের ‘ব্ল্যাক টাইগার’র কাজ

ভারতীয় গোয়েন্দা সংস্থা ‘র’ (রিসার্চ অ্যান্ড উইংস) – এর চৌকস কর্মকর্তা ছিলেন রবীন্দ্র কৌশিক। দেশটির সাবেক প্রধানমন্ত্রী ইন্দিরা গান্ধী রবীন্দ্রকে তার সাহসিকতার জন্য ‘দ্য ব্ল্যাক টাইগার’উপাধি দিয়েছিলেন। এমন এক ব্যক্তির জীবনের গল্পকে পর্দায় ফুটিয়ে তোলার দায়িত্ব ছিল সালমান খানের কাঁধে। এ বিষয়ে রবীন্দ্রের পরিবারেরও কোনো আপত্তি ছিল না। তবুও বন্ধ হল ছবির কাজ।

কিন্তু কেন? কারণ ‘দ্য ব্ল্যাক টাইগার’ তৈরির জন্য কেনা স্বত্বের মেয়াদ ছিল পাঁচ বছর। দীর্ঘদিন ধরে কথাবার্তা, নানা পরিকল্পনা চলতে চলতে সেই স্বত্বের মেয়াদ শেষ হয়ে যায়। ফলে আপাতত এই ছবি তৈরি করতে পারবেন না পরিচালক রাজ কুমার। অন্যদিকে সালমান খানও ব্যস্ত তার অন্য চলচ্চিত্রের কাজ নিয়ে। ফলে পরিচালক-অভিনেতার যৌথ সিদ্ধান্তে আপাতত রবীন্দ্র কৌশিকের জীবনীর কাজ স্থগিত। ‘র’ গোয়েন্দার ভূমিকায় সালমান খান সফল। ‘টাইগার’ হয়ে সে কথা আগেই প্রমাণ করেছেন তিনি। ফের একই চরিত্রে দেখা যেতো তাকে। এবার ‘টাইগার’ নয়, ‘ব্ল্যাক টাইগার’ হিসেবে। তবে আপাতত পরিকল্পনা আর বাস্তবায়িত হল না। অভিনয় ভালবাসতেন রবীন্দ্র কৌশিক। সিনেমার থেকে কম রোমাঞ্চকর নয় তার জীবন! একটি অনুষ্ঠানে তার অভিনয় ক্ষমতা দেখে ‘র’-এর কর্মকর্তারা তার পরিচয় গোপন রেখে পাকিস্তানে পাঠান। প্রতিবেশী দেশের বিশ্ববিদ্যালয়ে আইন নিয়ে পড়াশোনা করেন তিনি। এরপর সেখানকার সেনাবাহিনীতে যোগদান করে নানা গুরুত্বপূর্ণ তথ্য পাঠিয়েছিলেন ভারতে।

Related Posts