নেশার টাকা না পেয়ে বাবাকে হত্যা

কিশোরগঞ্জের কটিয়াদীতে নেশার টাকা না পেয়ে বাবাকে কুপিয়ে হত্যা করেছে হৃদয় মিয়া (২৫) নামের এক যুবক। এ ঘটনায় হৃদয়কে গ্রেফতার করা হয়।

বাবাকে হত্যার ঘটনায় শনিবার (২ অক্টোবর) সকালে বড় ভাই হৃদয়ের নামে থানায় মামলা করেন ছোট ভাই রতন মিয়া। নিহত নিধন মিয়া পৌরসভার দড়িচড়িয়াকোনা গ্রামের বাসিন্দা। এলাকাবাসী জানান, নিধন মিয়ার তিন ছেলের মধ্যে বড় হৃদয় মিয়া। নেশার টাকার জন্য প্রায়ই বাবার সঙ্গে খারাপ ব্যবহার করতেন তিনি। ভাঙচুর করতেন ঘরের আসবাবপত্র। শুক্রবার দিনগত রাত সাড়ে ১২টার দিকে বাজার থেকে বাড়ি ফিরছিলেন নিধন মিয়া। এ সময় বাড়ির পাশে রাস্তায় বাবার কাছে টাকা চান হৃদয়। নেশার টাকা না পেয়ে ধারালো দা দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর আহত করেন বাবাকে। আশপাশের লোকজন তাকে উদ্ধার করে কটিয়াদী উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে নিয়ে যান। কর্তব্যতে চিকিৎসকের পরামর্শে ঢাকা মেডিকেল কলেজ (ঢামেক) হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। খবর পেয়ে পুলিশ রাতেই অভিযান চালিয়ে হৃদয় মিয়াকে আটক করে। কটিয়াদী মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) এসএম শাহাদত হোসেন বলেন, নিহতের মরদেহ উদ্ধারের পর ময়নাতদন্তের জন্য কিশোরগঞ্জ ২৫০ শয্যা জেনারেল হাসপাতাল মর্গে পাঠানো হয়েছে। এ ঘটনায় থানায় মামলা হয়েছে। তিনি আরও বলেন, নিধন মিয়া টমটম চালিয়ে জীবিকা নির্বাহ করতেন। নেশার টাকা না পেয়ে ছেলে তাকে কুপিয়ে হত্যা করে। গ্রেফতার হৃদয়কে আদালতে পাঠানো হবে।