আবাসিক এলাকায় মেডিকেল শিক্ষার্থীর আত্মহত্যা

রাজধানীর গুলশান-১-এর নিকেতন আবাসিক এলাকার একটি বাসায় গলায় ফাঁস দিয়ে ফারিয়া হায়দার (২১) নামে এক মেডিকেল শিক্ষার্থীর আত্মহত্যার ঘটনা ঘটেছে।

শনিবার (১৭ জুলাই) সকাল সাড়ে ৯টায় অচেতন অবস্থায় তাকে উদ্ধার করে ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যান তার বাবা মো. আলম হায়দার। তিনি জানান, নিকেতন আবাসিক এলাকার ৪ নম্বর রোডের ৯১ নম্বর বাড়ির দ্বিতীয় তলাতে থাকেন। শুক্রবার রাতে খাবার খেয়ে নিজ কক্ষে ঘুমিয়ে পড়ে ফারিয়া। এরপর সকালে তিনি ফারিয়ার রুমে গিয়ে দেখেন, ফ্যানের সঙ্গে উড়না পেঁচিয়ে গলায় ফাঁস দিয়ে ঝুলে আছে সে। পরে তাকে উদ্ধার করে প্রথমে স্থানীয় একটি হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। সেখান থেকে চিকিৎসকরা তাকে পাঠিয়ে দেন ঢাকা মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে। সেখানে নেওয়ার পর কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। তিনি জানান, ফারিয়া মালয়েশিয়ার একটি মেডিকেল কলেজের প্রথম বর্ষের শিক্ষার্থী। করোনাভাইরাসের কারণে সে দেশে এসে অনলাইনেই ক্লাস করছিল। কী কারণে সে আত্মহত্যা করতে পারে, সে বিষয়ে কিছু জানাতে পারেননি তার বাবা। এ বিষয়ে কথা হলে গুলশান থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) আবুল হাসান জানান, ঘটনাটি শুনেছি। বিস্তারিত জানার জন্য মেডিকেলে একটি টিম পাঠানো হয়েছে।

 

Related Posts