নারী সহকর্মীকে আপত্তিকর মেসেজ,সাময়িক বরখাস্ত রসিক কর্মকর্তা

এক নারী সহকর্মীকে হোয়াটসঅ্যাপে অপত্তিকর মেসেজ দেয়ার অভিযোগে রংপুর সিটি করপোরেশনের (রসিক) পানি শাখার প্রধান সাজ্জাদুর রহমানকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। একইসঙ্গে ঘটনা তদন্তে তিন সদস্যের একটি কমিটি করে দিয়েছেন সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমান।

অবশ্য বছর দুয়েক আগে কয়েকজন কর্মকর্তার বিরুদ্ধে করপোরেশনের যান্ত্রিক শাখার প্রায় অর্ধকোটি টাকা লোপাটের প্রমাণসহ অভিযোগ করে বিভিন্ন সময় নগর ভবনে হেনস্থার শিকার হন এই কর্মকর্তা।

বিভিন্ন সূত্র থেকে জানা গেছে, বুধবার (১০ আগস্ট) দুপুর ১২টার দিকে নগর ভবনের ৩য় তলায় সাজ্জাদুর রহমানের অফিস কক্ষে বেশকিছু লোক গিয়ে হট্টগোল শুরু করে। একজন নারী সহকর্মীকে হোয়াটসঅ্যাপে আপত্তকর মেসেজ দেয়ার অভিযোগ করে তার ওপর চড়াও হন তারা। বিষয়টি জানানর পর সিটি মেয়র মোস্তাফিজার রহমান কাউনসিলর ও প্রশাসনিক কর্মকর্তাদের নিয়ে বৈঠকে বসেন। বৈঠকের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী ওই কর্মকর্তাকে সাময়িক অব্যাহতি দেয়া হয়।
একইসঙ্গে ঘটনা তদন্তে সিটি করপোরেশনের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট মাহমুদ হোসেন মৃধাকে প্রধান করে তিন সদস্যের একটি কমিটিও গঠন করা হয়েছে। কমিটিকে ১৫ দিনের মধ্যে বিষয়টি তদন্ত করে রিপোর্ট দিতে বলা হয়েছে।

এ ব্যাপারে অভিযুক্ত সাজ্জাদ হোসেনের সঙ্গে যোগাযোগের চেষ্টা করেও তাকে পাওয়া যায়নি।
এদিকে করপোরেশনের একাধিক কর্মকর্তা-কর্মচারী জানিয়েছেন, যাত্রিক শাখার দুর্নীতির বিষয়টি উঘাটনের পর থেকে সাজ্জাদ হোসেনের ওপর নানাভাবে হুমকি-ধামকি ও তাকে অপদস্ত করা হয়েছে। এ ঘটনাও সেরকম কিছু কি-না তা নিশ্চিত হতে অপেক্ষা করতে হবে।

Related Posts