তীব্র গরমে লিগ: ভবিষ্যতে সূচি নিয়ে ভাববে বিসিবি

তীব্র গরমে লিগ: ভবিষ্যতে সূচি নিয়ে ভাববে বিসিবি

তীব্র দাবদাহে পুড়ছে দেশ। খোলা জায়গায় কয়েক মিনিট দাঁড়ানোই যেখানে কঠিন, সেখানে তীব্র গরমে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ খেলছেন ক্রিকেটাররা। তীব্র গরমে খেলতে কষ্ট হলেও তা মুখ বুঝে সহ্য করছেন অনেকে। তবে বিসিবির পরিচালক ও আবাহনীর কোচ খালেদ মাহমুদ সুজন রাখডাক না করেই ক্রিকেটারদের কষ্টের কথা সংবাদ মাধ্যমে বলেছেন। তিনি বরং প্রশ্ন রেখেছেন, ঘরোয়া ক্রিকেটের সবচেয়ে জমজমাট আসরটি কেন গরমে অনুষ্ঠিত হবে? একদিন পর বিসিবি সভাপতি নাজমুল হাসান জানিয়েছেন, ভবিষ্যতে গরমের কথা তারা মাথায় রাখবেন।

ঢাকা লিগ শীতকালে নিয়ে যাওয়ার আলোচনা থাকলেও বাস্তবে সেটি বেশ কঠিন। কেননা বছরের শেষ দিকে বিসিবি জাতীয় লিগ, বাংলাদেশ ক্রিকেট লিগের মতো টুর্নামেন্ট আয়োজন করে থাকে। বছরের শুরুতে আছে বাংলাদেশ প্রিমিয়ার লিগ (বিপিএল)।তাছাড়া শীত মৌসুমে আন্তর্জাতিক ক্রিকেট নিয়েও ব্যস্ত সময় কাটান ক্রিকেটাররা। সেক্ষেত্রে সূচি বদলালে ঢাকা লিগ জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের বাদ দিয়েই খেলতে হবে। কিন্তু অনেক ক্লাব আছে যারা জাতীয় দলের ক্রিকেটারদের বাদ দিয়ে খেলতে চায় না।

তার পরেও বোর্ড সভাপতি নাজমুল হাসান পাপন আশ্বাস দিয়েছেন, ভবিষ্যতে গরমের কথা চিন্তা করে সূচি নির্ধারণ করবেন তারা, ‘আসলে এই গরমটা একেবারে অপ্রত্যাশিত, আগে কখনও দেখিনি। এটা অবশ্যই আমাদের মাথায় থাকবে। ভবিষ্যতে যখনই খেলাগুলোর পরিকল্পনা করবো, তখন বিষয়টা মাথায় থাকবে। তবে এটা মাথায় থাকলেই যে খুব বেশি কিছু একটা করা যাবে, তা আমার মনে হয় না। আমাদের যে ক্যালেন্ডার আর স্পেস আছে তাতে খুবই কঠিন।

বিসিবি সভাপতি পরে ক্লাবগুলোর সদিচ্ছার বিষয়টিও সামনে এনেছেন, ‘আমরা খেলা দিতে পারবো, কিন্তু কথা হচ্ছে ক্লাবগুলো খেলতে রাজি হবে কিনা। জাতীয় দলের ক্রিকেটার ছাড়া কেউ খেলতে চায় না। আর আমাদের যে দায়বদ্ধতা আছে, সেটাকে আলাদা রেখে সময় বের করা খুবই কঠিন। ওদের থাকতেই হবে এমন চিন্তা থেকে যদি বের হয়ে না আসি তাহলে সূচি সরানো যাবে না।

তীব্র গরমে পুড়ছে পুরো উপমহাদেশই। ভারতে এই গরমের মধ্যেও ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ অনুষ্ঠিত হচ্ছে। যদিও বেশিরভাগ ম্যাচই অনুষ্ঠিত হচ্ছে রাতের বেলায়। কলকাতার উদাহরণ টেনে বোর্ড প্রধান বলেছেন, ‘আপনি কলকাতার অবস্থা দেখেন, গরমে তো সেখানকার স্কুল-কলেজও বন্ধ রবিবার থেকে। কিন্তু খেলা হচ্ছে, বন্ধ হবে না।

1 Comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *