অক্টোবরের শেষ সপ্তাহে মাঠে গড়াচ্ছে প্রিমিয়ার লিগ হকি

চলতি বছরের অক্টোবরের শেষ সপ্তাহে মাঠে গড়াবে বহুল প্রতীক্ষিত প্রিমিয়ার লিগ হকি। আর এ বিষয়টি সংবাদমাধ্যমকে নিশ্চিত করেছেন ফেডারেশনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ ইউসুফ।

এর আগে ১৯ থেকে ২৩ সেপ্টেম্বর দলবদল আর ১২ অক্টোবর ক্লাব কাপ হকি টুর্নামেন্ট শুরু হবে বলেও জানান তিনি। প্রতিটি ক্লাব ৭ জন বিদেশি খেলোয়াড় রেজিস্ট্রেশন করানোর পাশাপাশি বিকেএসপির চারজন খেলোয়াড় নিতে পারবে বলেও নিশ্চিত করেছেন মোহাম্মদ ইউসুফ। সবশেষ ২০১৮ সালে হয়েছিল প্রিমিয়ার লিগ হকি। দীর্ঘ তিন বছর মাঠে নেই খেলোয়াড়দের অন্যতম আয়ের উৎস লিগ। নিয়মিত লিগ না হওয়ায় চরম আর্থিক সমস্যার মধ্যে দিন পার করছেন হকি খেলোয়াড়রা। করোনার মাঝে ক্রিকেট, ফুটবলের লিগ চললেও দেশের অন্যতম ডিসিপ্লিন হকি পিছিয়ে আছে বেশ খানিকটা। যেখানে লিগ নিয়ে চলতি বছর বেশকটি সভাও করেছিল ফেডারেশন। যদিও সেই সভাগুলো থেকে কোনো আশার কথা শোনাতে পারেনি কর্তারা।

এদিকে, হকির অচলাবস্থা দূর করতে প্রধানমন্ত্রীর কাছ থেকে এক কোটি টাকা অনুদান পেয়েছে ফেডারেশন। তারপরও ক্লাবগুলোর সঙ্গে সমন্বয়হীনতার কারণে দলবদল আর প্রিমিয়ার লিগের তারিখ নিয়ে সংশয় দেখা দেয়। হকি ফেডারেশনের ভারপ্রাপ্ত সাধারণ সম্পাদক মোহাম্মদ ইউসুফ বলেন, অবশেষে সবার অপেক্ষার পালা শেষ হচ্ছে। অক্টোবরের শেষ সপ্তাহে মাঠে গড়াবে প্রিমিয়ার লিগ হকি। এদিকে বিদেশি খেলোয়াড় নিয়ে মিশ্র প্রতিক্রিয়া ছিল ক্লাব কর্তাদের। তারও অবসান হয় হকির বৈঠকে। প্রতিটি ক্লাব ৭ জন বিদেশি খেলোয়াড় রেজিস্ট্রেশন করাতে পারবে। করোনা নামক বিষবৃক্ষের প্রকোপে গত বছর বিশ্ব ক্রীড়াঙ্গনজুড়ে নেমে আসে কালো মেঘের ছায়া। কঠিন পরিস্থিতির নেতিবাচক প্রভাব পড়ে দেশের ক্রীড়াঙ্গনেও। যেখানে দীর্ঘদিন মাঠে ছিল না হকি। যদিও ২০২০ সালের শুরুতেই ঢাকায় অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা ছিল জুনিয়র এশিয়া কাপ ও চ্যাম্পিয়নস ট্রফি। তবে কোভিড নাইন্টিন মহামারির কারণে পেছানো হয় এ দুটি আন্তর্জাতিক প্রতিযোগিতা।  করোনার আঁধার কেটে হকি অঙ্গন ফিরবে তার চেনা রূপে। এমন প্রত্যাশা সবার।

Related Posts