টেকনাফে অস্ত্রসহ আটক দুই রোহিঙ্গা

টেকনাফে অস্ত্রসহ আটক দুই রোহিঙ্গা

কক্সবাজারের টেকনাফে শরণার্থী ক্যাম্পে অস্ত্রসহ দুই রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীকে আটক করেছে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন)। যাদের মধ্যে একজন রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী বাহিনীর প্রধান।

মঙ্গলবার (৭ ডিসেম্বর) রাতে টেকনাফ উপজেলার হ্নীলা ইউনিয়নের ২৬ নম্বর শালবাগান রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ই-৩ ব্লকে এ অভিযান চালানো হয় বলে জানান ১৬ এপিবিএনের অধিনায়ক পুলিশ সুপার মোহাম্মদ তারিকুল ইসলাম।আটককৃতরা হলো- টেকনাফের ২৬ নম্বর শালবাগান রোহিঙ্গা ক্যাম্পের ই-৩ ব্লকের নুর মোহাম্মদ ছেলে মো. তোহা (২৩) এবং টেকনাফের নয়াপাড়া নিবন্ধিত রোহিঙ্গা ক্যাম্পের মো. আবুল ফয়েজের ছেলে মো. আব্দুল্লাহ (২৫)। এপিবিএন জানিয়েছে, আটকদের মধ্যে মো. তোহা একজন চিহ্নিত সন্ত্রাসী। সে নিজের নামে রোহিঙ্গা ক্যাম্পকেন্দ্রিক বাহিনী গড়ে তোলে নানা অপরাধ সংঘটন করে আসছিল পুলিশ সুপার তারিকুল বলেন, মঙ্গলবার রাতে টেকনাফের ২৬ নম্বর রোহিঙ্গা ক্যাম্পে কতিপয় সশস্ত্র লোকজন ডাকাতির প্রস্তুতি নিচ্ছে এমন খবরে এপিবিএনের একটি দল অভিযান চালায়। ঘটনাস্থলে পৌঁছলে এপিবিএন সদস্যদের উপস্থিতি টের পেয়ে ৭/৮ জন সন্দেহজনক লোক দৌড়ে পালানোর চেষ্টা চালায়। এতে ধাওয়া দিয়ে ২ জনকে আটক করা হলেও অন্যরা পালিয়ে যেতে সক্ষম হয়। এ সময় আটককৃতদের হেফাজত থেকে দেশীয় তৈরি একটি বন্দুক পাওয়া যায়। এপিবিএনের অধিনায়ক বলেন, আটককৃতদের মধ্যে মো. তোহা একজন চিহ্নিত সন্ত্রাসী। সে রোহিঙ্গা ক্যাম্পকেন্দ্রিক সক্রিয় একটি সন্ত্রাসী বাহিনীর প্রধান। সে নিজের নামে বাহিনী গড়ে তোলে নানা অপরাধ সংঘটন করে আসছিল। আটককৃতদের বিরুদ্ধে সংশ্লিষ্ট আইনে টেকনাফ থানায় মামলা করা হয়েছে বলে জানান পুলিশ সুপার তারিকুল।

অনলাইন ডেস্ক