কাস্টমস কর্মকর্তা দম্পতির বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

কাস্টমস কর্মকর্তা দম্পতির বিরুদ্ধে দুদকের মামলা

দেড় কোটি অবৈধ সম্পদ অর্জনের অভিযোগে কাস্টমসের রাজস্ব কর্মকর্তা আবদুল মান্নান মজুমদার ও তার স্ত্রী তাসনুভা চৌধুরীর বিরুদ্ধে মামলা করেছে দুর্নীতি দমন কমিশন (দুদক)।

বুধবার (২৩ মার্চ) বিকেলে দুদক সমন্বিত জেলা কার্যালয়-১ এ মামলাটি করেন সংস্থাটির সহকারী পরিচালক মো. এমরান হোসেন।  এ তথ্য নিশ্চিত করেন তিনি। আবদুল মান্নান মজুমদার কুমিল্লা জেলার চৌদ্দগ্রামের নেওড়া গ্রামের মৃত আবদুল গণি মজুমদারের ছেলে। তিনি বর্তমানে চট্টগ্রাম বন্দরের পানগাঁও টার্মিনালে শুল্ক গোয়েন্দা ও তদন্ত সার্কেলের রাজস্ব কর্মকর্তা হিসেবে কর্মরত রয়েছে। দুদক সূত্রে জানা যায়, আসামি তার দাখিলকৃত সম্পদ বিবরণীতে এক কোটি ৪২ লাখ ২২ হাজার ৭৪৫ টাকার সম্পদ অর্জন গোপন করে মিথ্যা তথ্য দিয়েছেন। জ্ঞাত আয়ের উৎসের সঙ্গে অসঙ্গতিপূর্ণ এক কোটি ৬১ লাখ ৯৬ হাজার ৪০৮ টাকার সম্পদ অর্জন করার অভিযোগ দুদকের তদন্তে প্রাথমিকভাবে প্রমাণিত হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে দুর্নীতি দমন কমিশন আইন ২০০৪ এর ২৬(২), ২৭(১) ও মানি লন্ডারিং প্রতিরোধ আইন ২০১২ এর ৪(২), ও ৪(৩) ধারাসহ দণ্ডবিধির ১০৯ ধারায় অভিযোগ করা হয়েছে। এসব সম্পদ তাসনুভা চৌধুরী অর্জন করেছেন দেখালেও এসব সম্পদ অর্জনে স্বামী আবদুল মান্নান মজুমদারের সম্পৃক্ততা রয়েছে বলে দুদক জানতে পারে।